নিজের ফেইসবুক পেজে পর্নো ভিডিও প্রকাশ নিয়ে যা বললেন মাহি

রবিবার, মে ২৬, ২০১৯ ৩:২১ অপরাহ্ণ

পর্নো ভিডিও প্রকাশ নিয়ে মুখ খুলেছেন নায়িকা মাহিয়া মাহি। তিনি বলেছেন, ‘কে বা কারা ভিডিওটি আপ করেছে আমি জানি না। তবে শুক্রবার রাত থেকে আমার ফেসবুক পেজটি হ্যাকড হয়েছে।’

পেজ হ্যাকড হলেও মাহি এখনও এ বিষয়ে অভিযোগ করেননি। এর আগেও বেশ কয়েকবার মাহির অনুমতি ছাড়া ফেসবুকে তার আপত্তিকর ছবি ও ভিডিও প্রকাশ করা হয়েছিল। মাহি সেসময় বলেছিলেন, শাওন নামে তার পুরোনো এক বন্ধু আইডি হ্যাক করে এসব করেছে।

উল্লেখ্য, গতকাল শনিবার সকালে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে মাহির পেজে পর্নো ভিডিও প্রকাশ করা হয়। কিছুক্ষণের মধ্যেই সেটা ভাইরাল হয়ে যায়।সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়ে গেছে মাহিয়া মাহির শেয়ার করা একটি ভিডিও। বলা হচ্ছে এটা মাহিয়া মাহির ঘনিষ্ঠ ভিডিও। কিন্তু বাস্তবে এমন গুজবের সত্যতা পাওয়া যায়নি।

বেশ কিছুদিন ধরেই শোবিজ তারকারা ফেসবুক আতংকে দিন কাটচ্ছে। কয়েক দিন পর পরই শোনা যায় তাদের ফেসবুক আইডি হ্যাক হওয়ার কথা। যেখান থেকে প্রায়ই বিভিন্ন আপত্তিকর জিনিস পোস্ট করা হয়। এবার সেই কাতারে যুক্ত হলো নায়িকা মহির নাম। শনিবার মাহির ফেসবুক ফ্যান পেজ থেকে একটি পর্নো ভিডিও পোস্ট করা হয়।

বিষয়টি নিয়ে আলাপ করার জন্য মাহিকে বেশ কয়েকবার কল দেয়া হলে তা বন্ধ পাওয়া যায়।এর আগে মাহিয়া মাহির সঙ্গে শাহরিয়ার শাওন নামের এক ছেলের বিয়ে হয়েছিল বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। যা মাহি অস্বীকার করে। মাহির অনুমতি না নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তার ছবি প্রকাশ করা হয়।

শাওন নিজেই তার ফেসবুক আইডিতে চিত্রনায়িকা মাহির সঙ্গে কিছু ছবি প্রকাশ করেন। প্রকাশের পর থেকে আলোচনার ঝড় ওঠে বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। নায়িকা মাহিয়া মাহির সঙ্গে ব্যবসায়ী পারভেজ মাহমুদ অপু বিয়ের পরদিন থেকেই কয়েকটি গণমাধ্যমে মাহির একাধিক বিয়ে সংক্রান্ত ছবি প্রকাশ হতে থাকে। সেখানে ছবি প্রকাশের পাশাপাশি দাবি করা হয় এর আগেও একাধিকবার মাহির বিয়ে হয়েছে। যদিও পরে তা মিধ্যে প্রমাণ হয়। সূত্র:বাংলা ইনসাইডার